চার দিনে ১০৭ টন বর্জ্য অপসারণ করেছে ডিএসসিসি

রাজধানীর বদ্ধ নর্দমাগুলো থেকে বর্জ্য অপসারণ কার্যক্রম শুরু করেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। গত বৃহস্পতিবার থেকে চানমারি-শাহজাহানপুর ঝিলে বর্জ্য অপসারণ কার্যক্রম শুরু হয়। রোববার পর্যন্ত (১৩ জুন) চার দিনে নর্দমার ১৭০ মিটার অংশ থেকে ১০৭ টন বর্জ্য অপসারণ করা হয়েছে।

রোববার (১৩ জুন) ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) জনসংযোগ কর্মকর্তা আবু নাছের এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, চানমারি-শাহজাহানপুর ঝিল পর্যন্ত বিস্তৃত নর্দমাটি দীর্ঘদিন ধরে পরিষ্কার না করার কারণে বর্জ্য ও পলিব্যাগ জমাটবদ্ধ হয়ে পানি প্রবাহে বাধা সৃষ্টি করছিল। সেই বাধা সরাতে পালাক্রমে তিনজন প্রশিক্ষিত ডুবুরি বর্জ্য অপসারণ কাজে অংশ নেন। এছাড়াও প্রতিদিন ১৭ জন করে পরিচ্ছন্নকর্মী এ অপসারণ কার্যক্রমে অংশ নেন। গত বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হওয়া এই কার্যক্রমে ৩ হাজার ৫০ ব্যাগ বর্জ্য অপসারণ করা হয়। প্রতিটি ব্যাগে ৩০ কেজি করে গড়ে ১০৬.৭৫০ টন বর্জ্য অপসারণ করা হয়।

আবু নাছের বলেন, অপসারিত বর্জ্যের মধ্যে পলিথিন ব্যাগ, চিপসের প্যাকেট, প্লাস্টিক বোতল, গাম বুট, বিভিন্ন ধরনের ফেব্রিকস ও কাপড়, ইট, ইটের খোয়া, কাটের টুকরা ইত্যাদি রয়েছে। তবে সব থেকে বেশি ছিল প্লাস্টিক বোতল, ফেব্রিক্স ও পলিথিন ব্যাগ।

এদিকে গত ৯ জুন নিয়মিত পরিদর্শনের অংশ হিসেবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস চানমারি মোড়ে বদ্ধ নর্দমা পরিদর্শনকালে জমে থাকা বর্জ্য দেখে বিস্ময় প্রকাশ করেছিলেন। এরপর নির্দেশনা অনুযায়ী এসব অপসারণের কাজ শুরু হয়।

ডিএসসিসির বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী ড. মো. শফিউল্লাহ সিদ্দিক ভুঁইয়ার সার্বিক তত্ত্বাবধানে অঞ্চল-২ এর নির্বাহী প্রকৌশলী সাইফুল ইসলাম (অ. দা.), সহকারী প্রকৌশলী মো. পারভেজ রানার সহযোগিতায় এবং ১১ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মির্জা আসলাম আসিফ, ১২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর খ ম মামুন রশিদ শুভ্র ও ৪ নং সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর ফারহানা ইসলাম ডলির তদারকিতে এ কার্যক্রম চলমান রয়েছে।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Next News BD Powered By : Code Next IT